Register Now

Login

Lost Password

Lost your password? Please enter your email address. You will receive a link and will create a new password via email.

আমাদের এলাকার এক লোক তার বাপ শরিক ভাই (বৈমাত্রেয় ভাই)…

আমাদের এলাকার এক লোক তার বাপ শরিক ভাই (বৈমাত্রেয় ভাই)…

প্রশ্ন

আমাদের এলাকার এক লোক তার বাপ শরিক ভাই (বৈমাত্রেয় ভাই) -এর মেয়ের মেয়েকে বিয়ে করেছে এবং তাদের ঘরে একটি ছেলেসন্তানও হয়েছে। তাদের এই বিয়ে নিয়ে আমাদের এলাকায় বিরূপ পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে।

তাই আমার জানার বিষয় হল, তাদের এই বিয়ে কি শরীয়তসম্মত হয়েছে? যদি না হয় তবে তাদের করণীয় কী? আর তাদের ছেলেসন্তানের হুকুম কী হবে? দয়া করে বিস্তারিত দলিল-প্রমাণসহ জানিয়ে বাধিত করবেন।

উত্তর

বৈমাত্রেয় ভাইয়ের মেয়ের মেয়ে মাহরামের অন্তর্ভুক্ত। তার সাথে বিবাহ হারাম। আল্লাহ তাআলা ইরশাদ করেছেন, (তরজমা) তোমাদের প্রতি হারাম করা হয়েছে তোমাদের মা, তোমাদের মেয়ে, তোমাদের বোন, তোমাদের ফুফু, তোমাদের খালা, ভাতিজী ও ভাগ্নী…। -সূরা নিসা (৪) : ২৩

কাযী ছানাউল্লাহ পানিপথী রাহ. তাফসীরে মাযহারীতে বলেন, উক্ত আয়াতে ‘ভাতিজী’ দ্বারা সহোদর, বৈমাত্রেয় ও বৈপিত্রেয় ভাইয়ের সন্তানাদি ও তাদের অধঃস্তন সকলেই উদ্দেশ্য। (তাফসীরে মাযহারী ২/২৬৫)

সুতরাং প্রশ্নোক্ত লোকটির জন্য তার বৈমাত্রেয় ভাইয়ের মেয়ের মেয়েকে বিয়ে করা সম্পূর্ণ হারাম হয়েছে। তাই এখনই তাদের পৃথক হয়ে যাওয়া জরুরি। আর বিগত দিনগুলো একত্রে বসবাসের জন্য আল্লাহ তাআলার নিকট খাঁটিমনে তাওবা-ইস্তিগফার করতে হবে।

উভয়ে পৃথক হয়ে যাওয়ার পর থেকে মহিলাটির জন্য ইদ্দত পালন করা জরুরি। ইদ্দতকালীন সময়ে তার ভরণপোষণ ঐ ব্যক্তিকে বহন করতে হবে। ইদ্দতের পর মহিলাটি অন্যত্র বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হতে পারবে। আর বিবাহ অবৈধ হলেও তাদের ঘরে জন্ম নেওয়া ছেলেটির বংশপরিচয় তার পিতা থেকেই সাব্যস্ত হবে এবং পিতার মৃত্যুর পর ঐ সন্তান তার ওয়ারিস গণ্য হবে।

-রদ্দুল মুহতার ৪/২৪, ৩/৫১৬; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ১/২৭৩, ১/৫২৬, ১/৫৩৬; ফাতাওয়া তাতারখানিয়া ৫/২২৬, ৫/২৬০

উত্তর দিয়েছেন : মাসিক আল-কাওসার

Leave a reply