কুরআন মাজীদ হাত থেকে পড়ে গেলে চুমু খাওয়া লবন, চাউল ইত্যাদি সদকা করা ৷

প্রশ্ন
মুফতী সাহেব! কুরআন মাজীদ হাত থেকে পড়ে গেলে আমরা অনুতপ্ত হই, সালাম করি, চুমু খাই ৷ আবার অনেকে বলে এক কেজি লবন চাউল ইত্যাদি বা তার সমমুল্য সদকা করতে হয় ৷ এগুলো কতটুকু সঠিক?
উত্তর
কুরআনে মাজীদের মত পবিত্র কিতাব হাত থেকে পড়ে গেলে অনুতপ্ত ভাব হওয়া ভাল লক্ষণ।
তবে এক্ষেত্রে সালাম করা, চুমু খাওয়া বা লবন চাউল ইত্যাদি সদকা করার কোন বিধান নেই। তবু যদি কেউ সুন্নত বা শরীয়তের বিধান মনে না করে এমনিতে সম্মানার্থে কুরআনে মাজীদ চুম্বন করে, তাহলে কোন সমস্যা নেই৷ কেননা হযরত ওমর রাঃ থেকে এ ব্যাপারে বর্ণিত আছে তিনি কুরআনে কারীম প্রতিদিন সকালে হাতে নিয়ে চুমু খেতেন। আর বলতেন, এটা আমার রবের নির্দেশনা, এবং আল্লাহর প্রেরিত। এমনিভাবে হযরত উসমান রাঃ ও কুরআনে মাজীদকে চুমু খেতেন এবং চোখে বুলাতেন।
রাদ্দুল মুহতার-৫/২৪৬, তাহতাবী আলা মারাকিল ফালাহ-২৫৯, ফাতওয়ায়ে মাহমুদিয়া-৭/১৪৭ ৷
মুফতী মেরাজ তাহসীন মুফতীঃ জামিয়া দারুল উলুম দেবগ্রাম ব্রাহ্মণবাড়িয়া ৷

উত্তর দিয়েছেন : মুফতি মেরাজ তাহসিন

Leave a Comment

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Pin It on Pinterest

অ্যাপের মাধ্যমে কিতাব ডাউনলোড ও  ইন্টারনেট ছাড়া পড়তে ইনস্টল করুন কওমী পাঠাগার অ্যাপটি