ক) মসজিদে কোনো ফ্যান, মাইক, বদনা ইত্যাদি দান করলেই কি…

প্রশ্ন

ক) মসজিদে কোনো ফ্যান, মাইক, বদনা ইত্যাদি দান করলেই কি তা ওয়াকফ হয়ে যাবে, নাকি মুখেও পৃথকভাবে ওয়াকফের কথা উচ্চারণ করা ওয়াকফের জন্য শর্ত?

প্রশ্ন : খ) মসজিদের চাঁদার দ্বারা যে ফ্যান, মাইক ইত্যাদি ক্রয় করা হয় তা কি ওয়াকফ হয়ে যাবে?

প্রশ্ন : গ) মসজিদের নারিকেল, আম ইত্যাদি যা অন্যদের কাছে বিক্রি করা হয় তা কি ইমাম-মুয়াযযিনের জন্য বিনামূল্যে খাওয়া জায়েয হবে?

অনুগ্রহপূর্বক উপরের মাসআলাগুলোর সমাধান শরীয়তের বিধান মোতাবেক দিয়ে আমাদের বিবাদ নিরসনে হযরতের সুমর্জি কামনা করছি।

উত্তর

ক) মসজিদে ফ্যান, মাইক ইত্যাদি কোনো জিনিস দান করলে তা মসজিদের ওয়াকফের অন্তর্ভুক্ত। এজন্য ওয়াকফ শব্দ উচ্চারণ করা জরুরি নয়।

উত্তর : খ) মসজিদের চাঁদা দিয়ে ফ্যান, মাইক ইত্যাদি ক্রয় করলে তা-ও মসজিদের নিজস্ব মালিকানা হিসেবে ধর্তব্য হবে এবং এর উপরও ওয়াকফের হুকুম আরোপিত হবে।

উত্তর : গ) মসজিদের গাছের ফল মসজিদের মালিকানাধীন সম্পদ। যথাসম্ভব এগুলো বিক্রি করে এর মূল্য মসজিদের প্রয়োজনে ব্যয় করতে হবে। এগুলো ইমাম-মুয়াযযিন বা অন্য কারো জন্য মুতাওয়াল্লির অনুমোদন ছাড়া বিনামূল্যে খাওয়া বৈধ হবে না।

-খুলাসাতুল ফাতাওয়া ৪/৪১৭; আলমুহীতুল বুরহানী ৯/১৩০-১৩১, ৯/১৩৮; রদ্দুল মুহতার ৪/৩৫৯; ফাতাওয়া হিন্দিয়া ২/৪১৭; আলইসআফ পৃ. ২২,৫৬

উত্তর দিয়েছেন : মাসিক আল-কাওসার

Leave a Comment

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Pin It on Pinterest