মাতৃভাষার গুরুত্ব

ভাষা মানবজাতিকে দানকৃত আল্লাহর
তাআলার অনন্য দান৷ মহা গ্রন্থ আল
কুরআনে ইরশাদ হয়েছে—
“এবং তাঁর (আল্লাহর) নিদর্শনাবলির
মধ্যে রয়েছে আকাশমণ্ডলী ও পৃথিবীর
সৃষ্টি এবং তোমাদের ভাষা ও বর্ণের
বৈচিত্র”৷
উপর্যুক্ত আয়াতে এ কথা স্পষ্ট হয়েছে যে,
আকাশমণ্ডলী, পৃথিবী, বিভিন্ন বর্ণ-গোত্র
ও ভাষার বৈচিত্র এসবই আল্লাহ তাআলার
অসীম কুদরত ও নিদর্শনাবলির অন্তর্ভূক্ত৷
ভাষা দিয়ে মানুষ মনের ভাব প্রকাশ করে৷
তাই ভাষাকে “ভাব প্রকাশের মাধ্যম”
বলা হয়৷ আল্লাহ তাআলা সর্ব প্রথম আদম
আঃ কে ভাষার শিক্ষা দিয়েছেন ৷ তিনি
সব ভাষায় পারদর্শী ছিলেন ৷ পরবর্তী
সময়ে তাঁর সন্তান সন্ততি ও বংশধররা যখন
বিশ্বের নানা প্রান্তে ছড়িয়ে পড়েন,
তখন তারা প্রত্যেকে স্বীয়ভাষা সমূহ
থেকে একেকটি ভাষাকে নিজেদের
ভাষারূপে গ্রহণ করেন ৷ এভাবে
ক্রমান্বয়ে একেকটি ভাষার উদ্ভব ঘটে ৷
আল্লাহ মানবজাতির হেদায়াতের জন্যে
নবী রসুল প্রেরণ করেছেন এবং কিতাব
নাযিল করেছেন প্রত্যেকর স্বগোত্রীয়
ভাষা দিয়ে ৷ যেন আল্লাহর হুকুম আহকাম
জাতিকে আপন ভাষাতেই উপস্থাপন
করতে পারেন ৷ করআনে ইরশাদ হয়েছে—
আমি প্রত্যেক রসুলকেই তাঁর স্বজাতির
ভাষাভাষী করে পাঠিয়েছি তাদের
নিকট পরিষ্কারভাবে ব্যাখ্যা করার জন্য
৷— সূরা ইবরাহীম-৪
উপর্যুক্ত আয়াত থেকে এ বিষয়টাও স্পষ্ট
হয় যে, কোন ভাষাকে অবজ্ঞা করা উচিত
নয় ৷ যেহেতু পৃথিবীর প্রায় সব দেশে এবং
মোটামুটি প্রায় সব ভাষাতেই আল্লাহ
ওহী প্রেরণ করেছেন বলে ধারণা করা
যেতে পারে ৷ এই আয়াতে আরো বলা
হয়েছে, আল্লাহ তাআলা প্রত্যেক নবীকে
তাঁর মাতৃভাষাতেই ওহী প্রেরণ করেছেন ৷
অতএব, প্রত্যেক মানুষের মাতৃভাষার প্রতি
শ্রদ্ধা প্রদর্শন এবং তা প্রয়োগ করা
অত্যাবশ্যক৷
আমাদের মাতৃভাষা বাংলা ৷ বর্তমানে
এই বাংলাভাষা পৃথিবীর পঞ্চম বৃহত্তম
ভাষা ৷ সুতরাং এই ভাষার প্রতিও শ্রদ্ধা
প্রদর্শন অতীব জরুরী ৷ এক সময় আমাদের
দেশের একদল আলেম-ওলামা
বাংলাভাষাকে ‘সংস্কৃতের দুহিতা’ মনে
করে এ ভাষাকে গুরুত্ব না দিয়ে আরবি,
ফার্সি, উর্দূর প্রতি খুব বেশি
আত্মনিয়োগ করেন ৷ যার ফলশ্রুতিতে
এখনো বাংলা ভাষায় দুর্বলতা প্রকট ৷
বর্তমানেও মানুষকে দেখা যায় যারা
আত্ম মাতৃভাষা বাংলার উপর অন্য
ভাষাকে প্রাধান্য দিচ্ছে ৷ আজকাল
সাইনবোর্ড, ব্যানার থেকে শুরু করে
আমাদের আদালত ও ইলেক্ট্রনিক
মিডিয়ায় প্রমিত বাংলার ব্যবহার হচ্ছে
না ৷ যার কারণে আমজনতাকে একটা
নোটিস বোঝার জন্যও অন্যের কাছে
দৌঁড়তে হচ্ছে ৷ যা নিতান্তই দুঃখজনক৷
ইংরেজি প্রীতি আমাদের আষ্টে পৃষ্টে
বেঁধে রেখেছে ৷ তবে আন্তর্জাতিক
ভাষা এবং এটার প্রতি গুরুত্বারোপ তা
অবশ্যই স্বীকার্য ৷ কিন্তু বাংলাকে
পশ্চাতে ফেলে এটার ব্যবহার উচিত নয় ৷
এ কারণেও আমাদের মাতৃভাষার গুরুত্ব
অপরিসীম যে, এ ভাষার স্বীকৃতির জন্য
যুদ্ধ করতে হয়েছে, অনেককে শহিদ হতে
হয়েছে ৷ যা পৃথিবীতে বড় বিরল ৷ সুতরাং
আমাদের “মাতৃভাষা বাংলা হোক
আমাদের নিঃশ্বাস, আঠারো কোটি
মানুষের সর্বজনীন সর্ব স্থানীয় ভাষা ৷
পরিশেষে বলতে চাই, ভাষা হলো
জ্ঞানের বাহন ৷ বাহন যতো উন্নত হয়
গন্তব্যে পৌঁছা ততো আরামদায়ক ও দ্রুত
হয় ৷ ভাষা যতো সুন্দর ও অলংকারপূর্ণ হবে
জ্ঞানের বিকাশ আর প্রকাশও ততো সুন্দর
ও গ্রাহ্য হবে ৷ তাই বাংলাভাষার গুরুত্ব
দিয়ে জ্ঞানীদের অগ্রসর হওয়া একান্ত
জরুরি ৷
সাইহানুল হক শাহরুমী

Leave a Comment

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.